এক কাপ চা

0
183

চা আমাদের বাঙালীদের কাছে অমৃতের মতন। যেটা রোজ সকালে উঠে থেকে শুরু করে দিনের শেষ পর্যন্ত একবারও না পেলে দিনটা কেমন যেন অসম্পূর্ণ মনে হয়। বাঙালীদের মধ্যে দুই দলের মানুষ থাকে। কিছু কিছু মানুষদের দিনের শুরুটা সকালবেলা এক কাপ চা দিয়ে শুরু হয়, আর রাতে খাওয়ার আগেও তারা এক কাপ চা খেয়ে তারপরে ভাত খায়। আবার কিছু কিছু মানুষ আছে যাদের কাছে চা খাওয়া আর না খাওয়া দুটোই সমান। (যদি এই দ্বিতীয় দলের মানুষরা কি করে চা ছাড়া বেঁচে থাকে সেটাই বড় প্রশ্ন)।

চা কিন্তু এমন একটা জিনিস যেটা আমাদের অজান্তেই আমাদের যে কোন চিন্তা থেকে একটু হলেও ছুটি দিতে পারে। তা এই চা জিনিসটা কিন্তু আমারা ছোট থেকেই দেখে আসছি। মানে যেমন বাড়িতে বড়রা চা খায়, আবার আমরা সারা রাত পড়লে মা চা করে নিয়ে আসত, আর বলত “এই নে চা খা, পড়ার এনার্জি পাবি, আর ঘুম পাবে না”। আর অদ্ভুত ভাবে সত্যিই ঘুম পেতো না!

• চা ছাড়া নো আড্ডা

পাড়ায় বসে পলিটিক্স থেকে বাংলা ব্যান্ড পর্যন্ত সব কিছু নিয়েই আলোচনার সেই অনুভূতিটা পাওয়াই যায় না যদি সাথে চা না থাকে।

• চা+সিগারেট

দোকান থেকে একটা সিগারেট কিনে ধরানোর পরে অন্য হাতটা খালি মনে হলে বুঝবেন যে আপনার সিগারেট তাঁর পার্টনার চা-কে মিস করছে!

• ভাঁড়ের চা

কলকাতার মানুষদের সব থেকে প্রিয় জিনিস এটি। যে দোকানে ভাঁড় থাকে না সেখানে অনেকে চা খাওয়ার প্রয়োজন মনে করে না!

• দূরত্ব একটা সংখ্যা মাত্র

এমনও কিছু কিছু মানুষ আছে যারা তাদের বাড়ি থেকে অনেকটা দূরে যায় কোন দোকানে চা খেতে, কারণ সেই দোকানের চা খেলে ওই যে বলেছিলাম অমৃতের স্বাদ পাওয়া যায়।

• চায়ের সাথে জ্ঞান ফ্রি

আমি দেখেছি চা খেতে খেতে বেশ কিছু মানুষের মধ্যে একটা কবিত্ব জেগে ওঠে, বা হয়তো জ্ঞানের ভাণ্ডারটা হঠাৎ উপছে পড়তে থাকে।

• “সত্য এক কাপ চা”

ফেলুদার পরে বাঙালির দ্বিতীয় প্রেম ব্যোমকেশও কিন্তু চা প্রেমী ছিলেন। তিনি তার সত্যর হাতের চা খেতে খুবই ভালোবাসতেন।

চা-প্রেমী বাঙালী কিন্তু এই এক কাপ চায়ের জন্য সারা দুনিয়া এদিক ওদিকও করে দিতে পারেন, এবং চায়ের জন্য বাঙালীদের কাছে সময় থাকে সমসময়, যখনই বলা হবে তারা চা খেতে রাজি। চা যে তাদের জীবনে কতটা যায়গা দখল করে আছে সেটা তো আপনারা দেখতেই পেলেন। বাকিটা আপনারা জানান আমাদের কমেন্ট বক্সে। যে আপনাদের রোজকার জীবনে চায়ের কতটা মুল্য!